মোবাইল অ্যাপে ডিএসইর লেনদেন বেড়েছে

প্রিন্ট
ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার সহযাত্রী হিসেবে মোবাইল প্রযুক্তির ছোয়া লেগেছে দেশের শেয়ারবাজারে। এরই ধারবাহিকতায় গত ৯ মার্চ, ২০১৬ সালে মোবাইল ভিত্তিক শেয়ার ট্রেডিং অ্যাপ চালু করেছে ডিএসই। ফলে সহজেই মোবাইল অ্যাপের মাধ্যমে শেয়ারবাজোরের লেনদেন করা যায়। যা বিনিয়োগকারীদের নিকট জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে। এর মাধ্যমে বাড়ছে লেনদেনের পরিমাণ।

ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) তথ্য অনুযায়ী, ২০১৮-১৯ অর্থবছরে বিনিয়োগকারীরা ডিএসই মোবাইল অ্যাপের মাধ্যমে ৬৯ লাখ অর্ডার করে। তার আগের বছরে (২০১৭-১৮)বিনিয়োগকারীরা ৪২ লাখ অর্ডার করে।

২০১৭-১৮ অর্থবছরের তুলনায় ২০১৮-১৯ অর্থবছরে মোবাইল অ্যাপের মাধ্যমে অর্ডার ৫৭ শতাংশ বা ২৭ লাখ বেড়েছে। গত অর্থবছরে (২০১৮-১৯) মোবাইল অ্যাপ ব্যবহার করে লেনদেন করে এমন বিনিয়োগকারীর সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৪৬ হাজার ২৮৩ জন। যা ২০১৮ এর জুলাইতে ছিল ৩৪ হাজার ৮০ জন।

উল্লেখ্য, গত ৯ মার্চ, ২০১৬ সালে এই মোবাইল ভিত্তিক শেয়ার ট্রেডিং অ্যাপ চালু করার পর থেকে প্রতি বছরে ক্রমেই বাড়ছে ব্যবহারকারীর সংখ্যা। ডিএসই-মোবাইল অ্যাপ ব্যবহার করে একজন বিনিয়োগকারী ব্রোকারেজ হাউজে না গিয়েই শেয়ার লেনদেন করতে পারেন। এতে লেনদেন একধাপ সহজ হয়েছে। ফলে বিনিয়োগকারীদের কাছে জনপ্রিয় হয়ে উঠছে মোবাইলে লেনদেন।