সহস্রাধিক কলেজ শিক্ষক এমপিওভুক্ত হচ্ছেন

প্রিন্ট

সারাদেশের সহস্রাধিক কলেজ শিক্ষক এমপিওভুক্তির সুযোগ পাচ্ছেন। বেসরকারি কলেজে তারা তৃতীয় শিক্ষক হিসেবে পরিচিত। এতদিন তারা শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান থেকে দেওয়া সামান্য অর্থের বিনিময়ে পাঠদান করছিলেন। এর আগে এক একটি বিষয়ে দুইজন করে শিক্ষক এমপিওভুক্ত হওয়ায় এই শিক্ষকরা সরকারি সুবিধা পাচ্ছিলেন না।

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নিয়ম অনুযায়ী, কোনো বেসরকারি কলেজে কোনো বিষয়ে ডিগ্রি পড়াতে গেলে অন্তত তিনজন শিক্ষক থাকতে হবে। অনার্স পড়াতে গেলে চারজন শিক্ষক লাগে। অথচ মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদপ্তরের নিয়ম অনুসারে একটি বিষয়ে মাত্র দু’জন শিক্ষক এমপিওভুক্ত হতে পারেন। এই দু’জনের বেতন সরকার থেকে দেওয়া হয়। একই বিষয়ের তৃতীয় শিক্ষকের বেতন-ভাতা কলেজ তহবিল থেকে পরিশোধ করতে হয়। সরকারি এ নিয়মের কারণে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনে দেশের সব ডিগ্রি কলেজে বিষয়ভিত্তিক তৃতীয় শিক্ষকরা এতদিন এমপিও সুবিধা থেকে বঞ্চিত ছিলেন।

জানা গেছে, বাংলাদেশ ডিগ্রি (তৃতীয়) শিক্ষক পরিষদের সভাপতি আবু বক্কর সিদ্দিক ও সাধারণ সম্পাদক রুমানা পারভীন গত মে মাসে শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনির কাছে তৃতীয় শিক্ষকদের এমপিওভুক্ত করার আবেদন করেন।

মন্ত্রণালয় সূত্র জানায়, প্রাথমিকভাবে মন্ত্রণালয়ের সিদ্ধান্ত ছিল, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের এমপিওভুক্তির পর তৃতীয় শিক্ষকদের বিষয়টি বিবেচনা করা হবে। তবে নানা কারণে প্রতিষ্ঠান এমপিওভুক্তিতে বিলম্ব হওয়ায় বিধি অনুযায়ী নিয়োগ পাওয়া তৃতীয় শিক্ষকদের এমপিওভুক্তির বিষয়টিতে অগ্রাধিকার দেওয়ার সিদ্ধান্ত হয়েছে।