কাবুলে বিলাসবহুল হোটেলে আত্মঘাতী বোমা হামলা, নিহত ৬৩

আফগানিস্তানের রাজধানী কাবুলের একটি বিলাসবহুল হোটেলে বিয়ের অনুষ্ঠানে আত্মঘাতী বোমা হামলায় অন্তত ৬৩ জন নিহত হয়েছে। এ সময় আহত হয়েছে আরো ১৮০ জনেরও বেশি।

গতকাল শনিবার স্থানীয় সময় রাত পৌনে ১১ টায় পশ্চিম কাবুলের শিয়া অধ্যুষিত এলাকায় একটি কমিউনিটি হলে এ হামলা চালানো হয়। আজ রোববার বিবিসিসহ একাধিক আন্তর্জাতিক গণমাধ্যম এ তথ্য জানিয়েছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, বিয়ের অনুষ্ঠানে নারী ও পুরুষের জন্য আলাদা হল বরাদ্দ ছিল। পুরুষের হলে বোমার বিস্ফোরণ ঘটানো হয়।

বিয়েতে আমন্ত্রিত অতিথি মোহাম্মদ ফারহাগ বলেন, বোমা বিস্ফোরণের সময় বিশেষ কাজে নারীদের হলঘরে ছিলেন তিনি। পুরুষরা যে অংশে ছিল, সেখানে হঠাৎ বোমা বিস্ফোরিত হয়। এতে আতঙ্কে ছোটাছুটি শুরু করে সবাই।

তিনি বলেন, প্রায় ২০ মিনিটের মতো পুরো হলঘর ধোঁয়াচ্ছন্ন ছিল। পুরুষদের অংশের প্রায় সবাই নিহত বা আহত হয়েছেন। বিস্ফোরণের দুই ঘণ্টা পরও সেখান থেকে লাশ বের করা হচ্ছে।

আফগানিস্তানে চলমান দীর্ঘস্থায়ী যুদ্ধের সমাপ্তি টানতে সম্প্রতি যুক্তরাষ্ট্র ও তালেবান গোষ্ঠীর মধ্যে শান্তি আলোচনা চলছে। এর মধ্যেই একের পর এক হামলায় ওই আলোচনা কতটা ফলপ্রসূ হবে তা নিয়ে শঙ্কা দেখা দিয়েছে।

এখন পর্যন্ত কেউ এ হামলার দায় স্বীকার করেনি।

এর আগে গত ৭ আগস্ট কাবুল পুলিশ স্টেশনের কাছে ভয়াবহ বোমা বিস্ফোরণে ১৪ জন প্রাণ হারায়। এ ঘটনায় আহত হয় প্রায় ১৫০ জন।

এ ছাড়া গত ৩১ জুলাই আফগানিস্তানের পশ্চিমাঞ্চলীয় ফারাহ প্রদেশে রাস্তার পাশে পুঁতে রাখা বোমা বিস্ফোরণে ৩৪ বাসযাত্রী নিহত ও আহত হয় ১৭ জন। বালা বুলুক জেলার কান্দাহার-হেরাত মহাসড়কে এ ঘটনা ঘটে।

image_printপ্রিন্ট করুন
শেয়ার করুনঃ