গার্মেন্টস কারখানা

করোনাভাইরাস: পোশাক শিল্পে ১৪৮ কোটি ডলারের অর্ডার বাতিল

মহামারি করোনা ভাইরাসে বিশ্বে এখন পর্যন্ত মৃতের সংখ্যা ১৪ হাজার ছাড়িয়ে গেছে। বাংলাদেশেও প্রতিদিন বাড়ছে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা। এ সংক্রমণের প্রভাব পড়েছে দেশের তৈরি পোশাকখাতে। বাতিল হচ্ছে একের পর এক অর্ডার।

তৈরি পোশাক উৎপাদন ও রপ্তানিকারক সমিতির (বিজিএমইএ) তথ্য অনুযায়ী, করোনা ভাইরাসের প্রভাবে ভয়াবহ অবস্থা দেশের পোশাকখাতে। বিভিন্ন দেশ থেকে ক্রেতারা তাদের ক্রয়াদেশ আপাতত বাতিল করছেন। মোট এক হাজার ৮৯টি কারখানায় এক দশমিক ৪৮ বিলিয়ন মার্কিন ডলারের অর্ডার (সাড়ে ১২ হাজার কোটি টাকা) বাতিল হয়েছে। বড় ধরনের সংকট তৈরি হয়েছে এ খাতে।

রোববারে (২২ মার্চ) দিনগত রাতে গণমাধ্যমকে দেওয়া এক বার্তায় বিজিএমইএ সভাপতি ড. রুবানা হক বলেন, ভয়াবহ অবস্থা চলছে তৈরি পোশাক খাতে। বিভিন্ন দেশ ও মহাদেশ থেকে সমস্ত ক্রেতারা তাদের সমস্ত ক্রয়াদেশ আপাতত বাতিল করছেন। তারা বলেছেন স্থগিত, তবে আমাদের জন্য স্থগিত ও বাতিল একই জিনিস।

ড. রুবানা বলেন, আমাদের ক্ষতির পরিমাণ হিসাব করতে একটি ওয়েবপোর্টাল করেছি। সেখানে চার হাজার কারখানার মধ্য থেকে এক হাজার ৮৯টি কারখানাকে ক্ষতিগ্রস্ত হিসেবে এন্ট্রি করেছি। যেখানে ৮৭ কোটি ৩২ লাখ ৩৬ হাজার ৬২২টি অর্ডার বাতিল হয়েছে। যার আর্থিক পরিমাণ এক দশমিক ৪৮ বিলিয়ন মার্কিন ডলার। এসব কারখানার মোট শ্রমিকের সংখ্যা ১২ লাখ।